Categories
সংবাদ বিজ্ঞপ্তি

ভারতীয় চলচ্চিত্রে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস বিকৃতির তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানালো উদীচী

ভারতের ইয়াশ রাজ ফিল্মস-এর ব্যানারে নির্মিত বলিউডি চলচ্চিত্র “গুনডে”-তে বাংলাদেশের মহান মুক্তিযুদ্ধের বিকৃত ইতিহাস তুলে ধরার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছে বাংলাদেশ উদীচী শিল্পীগোষ্ঠী। এক প্রতিবাদপত্রে উদীচী’র কেন্দ্রীয় সভাপতি কামাল লোহানী এবং সাধারণ সম্পাদক প্রবীর সরদার বলেন, চলচ্চিত্রটির শুরুতে ১৯৭১ সালের মহান স্বাধীনতা যুদ্ধকে বর্ণনা করা হয়েছে ‘তৃতীয় ভারত-পাকিস্তান যুদ্ধ’ হিসেবে, যা পরিস্কারভাবেই ইতিহাস বিকৃতি। কোন রকম যাচাই-বাছাই ছাড়া একটি স্বাধীন, সার্বভৌম দেশের স্বাধীনতার ইতিহাস নিয়ে এধরণের বিকৃত তথ্য উপস্থাপনা অপরাধের সামিল বলে মনে করে উদীচী। ১৯৭১ সালে ভারতীয় ও পাকিস্তানি সেনাবাহিনীর সরাসরি যুদ্ধ মাত্র কয়েকদিন হলেও গোটা মুক্তিযুদ্ধকেই ভারত-পাকিস্তান যুদ্ধ হিসেবে বর্ণনা করে চলচ্চিত্রটির নির্মাতারা লাখো মুক্তিযোদ্ধার বীরত্বগাঁথাকে অস্বীকার করেছেন। এটি নিঃসন্দেহে নিন্দাযোগ্য অপরাধ এবং এর জন্য অবশ্যই ওই চলচ্চিত্রটির গল্প লেখক ও নির্দেশক আলী আব্বাস জাফর এবং প্রযোজক আদিত্য চোপড়াসহ এর সাথে সংশ্লিষ্ট সকলের ক্ষমা প্রার্থনার দাবি জানান উদীচী নেতৃবৃন্দ।

বলিউডের চলচ্চিত্র সারা বিশ্বে ব্যাপকভাবে প্রচারিত হয় বিধায় এ বিষয়ে দ্রুত পদক্ষেপ না নিলে বাংলাদেশের মহান মুক্তিযুদ্ধ নিয়ে বিদেশের অনেকেই বিকৃত ও ভুল তথ্য জানবে, যা কোনভাবেই কাম্য নয়। তাই, অবিলম্বে এ বিষয়ে যথাযথ পদক্ষেপ গ্রহণের জন্য সরকারের সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের প্রতি দাবি জানান উদীচী’র সভাপতি কামাল লোহানী এবং সাধারণ সম্পাদক প্রবীর সরদার।